সরকারি নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি আদায়ে আজ ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে সারাদেশে গণঅনশন

0
314

হিল ভয়েস, ২২ অক্টোবর ২০২২, ঢাকা: সরকারি দলের নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি আদায়ে বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে রাজধানী ঢাকার সহ আজ সারাদেশে গণঅনশন চলছে। আজ সকাল থেকে শুরু হয়ে সন্ধ্যা পর্যন্ত এই গণঅনশন কর্মসূচি পালিত হবে। রাজধানী ঢাকায় এ কর্মসূচি পালিত হয়েছিল জাতীয় শহীদ মিনার চত্বরে।

গতকাল (২১ অক্টোবর) এই কর্মসূচি বিষয়ে ঐক্য পরিষদের দপ্তর সম্পাদক মিহির রঞ্জন হাওলাদার স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তি প্রচার করা হয়েছে।

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, “গত একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রাক্কালে বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের নেতৃত্বে ধর্মীয়-জাতিগত সংখ্যালঘু ঐক্যমোর্চা রাজধানী ঢাকার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের মহাসমাবেশ থেকে সংখ্যালঘু স্বার্থবান্ধব বেশ কয়েকটি দাবি উত্থাপন করে তা মেনে নেয়ার জন্য দেশের সকল রাজনৈতিক দলের কাছে আবেদন জানায়। এরই প্রেক্ষিতে প্রায় সবকটি গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক দল পৃথক পৃথকভাবে তাদের ঘোষিত নির্বাচনী মেনিফেস্টোতে কোন কোন দাবি মেনে নেয়ার অঙ্গিকার ব্যক্ত করে। সরকারি দল আওয়ামী লীগ তাদের ঘোষিত নির্বাচনী মেনিফেস্টোতে জাতীয় সংখ্যালঘু মন্ত্রণালয়ের দাবি ছাড়া বাদবাকি অন্যসব দাবি মেনে নেয় এবং এ মর্মে প্রতিশ্রুতি দেয় যে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় এলে সংখ্যালঘু সুরক্ষা আইন, বৈষম্য বিলোপ আইন ও দেবোত্তর সম্পত্তি সংরক্ষণ আইন প্রণয়ন করবে; জাতীয় সংখ্যালঘু কমিশন ও সমতলের আদিবাসীদের জন্যে পৃথক ভূমি কমিশন গঠন করবে; অর্পিত সম্পত্তি প্রত্যর্পণ আইন, পার্বত্য শান্তিচুক্তি ও পার্বত্য ভূমি কমিশন আইনের দ্রুত বাস্তবায়ন করবে। কিন্ত এ পর্যন্ত এসব দাবি পূরণে সরকারের কোন উদ্যোগ প্রত্যক্ষভাবে দৃশ্যমান না হওয়ায় ঐক্য পরিষদ ধর্মীয়-জাতিগত সংখ্যালঘুদের অপরাপর সংগঠনসমূহের সমন্বিত করে ঐক্যবদ্ধভাবে সরকারি দলের নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়নের দাবিতে বৃহত্তর আন্দোলনের কর্মসূচি হাতে নিয়েছে।”

প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে আরও উল্লেখ করা হয়েছে, “প্রাথমিক পর্যায়ে চলতি বছরের ২৪ মার্চ ঢাকার শাহ্বাগ চত্বরে আয়োজিত এক সমাবেশ থেকে প্রায় ২.৫০ লক্ষ (দুই লক্ষ পঞ্চাশ হাজার) লোকের গণস্বাক্ষরসম্বলিত এক স্মারকলিপি নিয়ে পদযাত্রা সহকারে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় অভিমুখে যাওয়ার কালে এক পর্যায়ে পুলিশ মিছিলটির গতিরোধ করে এবং ৭ (সাত) জন সংখ্যালঘু নেতৃবৃন্দকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে গেলে সেখানে তারা গণস্বাক্ষরসম্বলিত স্মারকলিপি প্রধানমন্ত্রীর বরাবরে অর্পণ করেন। প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের কর্মকর্তাবৃন্দ তা গ্রহণ করেন। ..পরবর্তীতে ৯০ দিন অতিক্রান্ত হবার পরেও তা বাস্তবায়নে কোন উদ্যোগ দেখা না যাওয়ায় কর্মসূচির দ্বিতীয় পর্যায়ে গত ১৬ জুলাই, ২০২২ শনিবার বিকেল ৪টায় সারাদেশে একই দাবিতে সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়। রাজধানী ঢাকায় এ কর্মসূচি পালিত হয়েছিল জাতীয় শহীদ মিনার চত্বরে।”

কিন্তু এর পরেও এ ব্যাপারে সরকারের রহস্যজনক নিরবতায় বাধ্য হয়ে ঐক্য পরিষদ দেশব্যাপী আজ ২২ অক্টোবর ২০২২ শনিবার সকাল-সন্ধ্যা গণঅনশন কর্মসচী হাতে নিয়েছে বলে প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে।