টাঙ্গাইলে কালী মন্দিরে দুর্বৃত্তের হামলা : ঐক্য পরিষদের তীব্র নিন্দা প্রকাশ

0
456

হিল ভয়েস, ২০ জানুয়ারি ২০২৪, টাঙ্গাইল: টাঙ্গাইলের সদর উপজেলার ঘারিন্দা পয়লা গ্রামের কালী মন্দিরে শ্রীশ্রী মহানামযজ্ঞ হরিনাম সংকীর্তন চলাকালীন একদল স্থানীয় সশস্ত্র দুর্বৃত্ত কর্তৃক মন্দিরে হামলা, ভাংচুর ও নির্যাতনের ঘটনা ঘটানোর খবর পাওয়া গেছে।

গতকাল ১৯ জানুয়ারি সন্ধ্যায় টাঙ্গাইল জেলার সদর উপজেলা ঘারিন্দা ইউনিয়নের ০৯ নং ওয়ার্ডের পয়লা গ্রামের কালী মন্দিরে শ্রীশ্রী মহানামযজ্ঞ হরিনাম সংকীর্তন চলাকালীন সময়ে একদল স্থানীয় সশস্ত্র দুর্বৃত্ত এই ঘটনা ঘটায়। এই ঘটনায় বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রীস্টান ঐক্য পরিষদ তীব্র নিন্দা প্রকাশ করেছে। আজ শনিবার (২০ জানুয়ারি) সংগঠনটির দপ্তর সম্পাদক মিহির রঞ্জন হাওলাদারের স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এই নিন্দা প্রকাশ করা হয়।

প্রেস বিজ্ঞপ্তির মারফত জানা যায়, প্রতি বছরের ন্যায় সনাতনীদের বার্ষিক ধর্মীয় অনুষ্ঠান নাম সংকীর্তন চলাকালে আশরাফ ও আলামিনের নেতৃত্বে স্থানীয় সন্ত্রাসীরা প্রসাদ খাওয়ার অজুহাতে মন্দিরে ঢুকে পূজার্থীদের ওপর হামলা, ভাংচুর ও নির্যাতন করে। উক্ত ঘটনার কিছু সময় পর পুনরায় ৫০/৬০ জনের একটি সশস্ত্র দল মন্দির সংলগ্ন সনাতন ধর্মাবলম্বীদের বসবাসকারী পাড়ায় বিভিন্ন বাড়িঘরে হামলা, ভাংচুর ও মারধর চালায়। সন্ত্রাসীদের হামলায় ১৫ জন নারী-পুরুষ আহত হয়। গুরুতর আহতদের ৫ জনকে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

উক্ত ঘটনার প্রতিবাদে আজ ২০ জানুয়ারি ২০২৪, টাঙ্গাইল জেলা বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ ও বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদের যৌথ আয়োজনে ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সমরেশ পালের সভাপতিত্বে টাঙ্গাইল আদালতপাড়া বড় কালীবাড়ী রোডে শত শত লোকের উপস্থিতিতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতিত্রয় ঊষাতন তালুকদার, অধ্যাপক ড. নিমচন্দ্র ভৌমিক ও নির্মল রোজারিও এবং ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মনীন্দ্র কুমার নাথ টাঙ্গাইলের সদর উপজেলার পয়লা গ্রামে কালী মন্দিরে নাম সংকীর্তন চলাকালীন অবস্থায় দুর্বৃত্তের এহেন সাম্প্রদায়িক হামলায় তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন এবং অনতিবিলম্বে সকল হামলাকারীকে গ্রেপ্তার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানিয়েছেন।