বান্দরবানে বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী এক জুম্ম কিশোরীকে ধর্ষণের চেষ্টা, আসামি মোহাম্মদ ওসমান আটক

0
902
ছবি: ধর্ষণের চেষ্টাকারী মোহাম্মদ ওসমান

হিল ভয়েস, ১৪ মে ২০২১, বান্দরবান: বান্দরবান পার্বত্য জেলাধীন বান্দরবান সদর উপজেলার রাজভিলা ইউনিয়নের বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী এক জুম্ম কিশোরীকে (১৪) এক বাঙালি সিএনজি চালক কর্তৃক ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল ১৩ মে ২০২১ বিকাল আনুমানিক ৪:৩০ টার দিকে এই ঘটনা ঘটে। 

ধর্ষণের চেষ্টাকারীর পরিচয় মোহাম্মদ ওসমান (৩১), পীং-মো: আব্দুল হাকিম, ঠিকানা-বালাঘাটা গধার পাড়, ১নং ওয়ার্ড, বান্দরবান পৌরসভা, বান্দরবান সদর। সে পেশায় একজন সিএনজি চালক এবং বালাঘাটা সুপার স্টার বেকারীর কর্মচারী।

পুলিশ আসামী মোহাম্মদ ওসমানকে গ্রেপ্তার করেছে বলে জানা গেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, ঐদিন বিকেল ৪:৩০ টার দিকে ভুক্তভোগী বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী কিশোরী রাজভিলা ইউনিয়নের বাঘমারা হেডম্যান পাড়ার রাস্তায় হাঁটছিল। এসময় মেয়েটিকে একা পেয়ে সিএনজি চালক মোহাম্মদ ওসমান মোবাইল ফোন ও টাকা দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে সিএনজিতে তুলে ৫ কিলোমিটার দূরের ২নং তারাছা ইউনিয়নের হানসামা পাড়ার পার্শ্ববর্তী এলাকার সেগুন বাগানে নিয়ে গিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা চালায়।

এসময় মেয়েটি ভয়ে চিৎকার করলে পার্শ্ববর্তী এলাকার লোকজন এগিয়ে এসে মেয়েটিকে উদ্ধার করে এবং ধর্ষণের চেষ্টাকারী মোহাম্মদ ওসমানকে আটক করে পুলিশের হাতে সোপর্দ করে।

ভুক্তভোগী মেয়েটির বাড়ি রাজভিলা ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের বাঘমারা হেডম্যান পাড়ায় বলে জানা গেছে।

এ ঘটনায় বাদী হয়ে ভুক্তভোগীর বাবা রোয়াংছড়ি থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা দায়ের করেন।

বান্দরবান সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জানান, প্রলোভন দেখিয়ে বুদ্ধিপ্রতিবন্ধী কিশোরীকে তুলে নিয়ে ধর্ষণ চেষ্টার ঘটনার আসামী মোহাম্মদ ওসমান নিজ মুখে স্বীকার করেছেন। ভুক্তভোগীর বাবা বাদী হয়ে মামলায় করেছেন। 

আজ দুপুরে আসামিকে বান্দরবান জজ আদালতে প্রেরণ করার কথা রয়েছে বলে জানা গেছে।