রাঙ্গামাটির রিজার্ভ বাজার থেকে সাবেক হেডম্যান লালতং পাংখোয়া অপহৃত

0
353

হিল ভয়েস, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, রাঙ্গামাটি: রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলাধীন রাঙ্গামাটি শহরের রিজার্ভ বাজার এলাকা থেকে বরকল উপজেলা এলাকার এক সাবেক হেডম্যান লালতং পাংখোয়া (৪৫) অপরিচিত পাঁচ বাঙালি কর্তৃক দিনে দুপুরে অপহরণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। অপহরণকারী বাঙালিরা সেনাবাহিনীর গোয়েন্দা বিভাগের লোক বলে বিশ্বাস প্রত্যক্ষদর্শী ও স্থানীয় সূত্রের।

গত ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ দুপুর আনুমানিক ২:৪৯ টার দিকে রিজার্ভ বাজার এলাকার শান্তি আবাসিক হোটেলের কক্ষ থেকে এই অপহরণের ঘটনা ঘটেছে বলে জানা গেছে। আজ ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ তিন দিন পরও অপহৃতের কোনো হদিশ মেলেনি।

অপহরণের শিকার লালতং পাংখোয়া রাঙ্গামাটি জেলার বরকল উপজেলাধীন আইমাছড়া ইউনিয়নের ১৬৪নং চাইচাল মৌজার প্রাক্তন হেডম্যান। তিনি পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি’র বরকল থানা কমিটির একজন সদস্য বলেও জানা গেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গত ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ লালতং পাংখোয়া ডাক্তারের সাথে দেখা করতে রাঙ্গামাটি যান। ঐদিন একই এলাকার বাসিন্দা নতুন কুমার চাকমা ও তার স্ত্রী কালাবি চাকমাও ডাক্তার দেখাতে রাঙ্গামাটি যান। উভয় পক্ষের সিদ্ধান্ত হয় যে, ডাক্তার দেখানোর পর তারা এক সঙ্গেই বাড়িতে ফিরবেন।

সেদিন নতুন কুমার চাকমার স্ত্রী কালাবি চাকমা ডাক্তার দেখাতে পারলেও লালতং পাংখোয়া ডাক্তার দেখাতে পারেননি। ফলে সেই রাতটি কাটানোর জন্য তারা রিজার্ভ বাজারের শান্তি আবাসিক হোটেলে উঠেন। পরদিন তারা বরকলে ফিরবেন বলে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন।

এর পরদিন ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ দুপুর আনুমানিক ২:৪৯ টার দিকে তারা যখন হোটেলের কক্ষ ছাড়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন ঠিক সেই মুহূর্তে ৫ জন অচেনা বাঙালি সেই কক্ষে প্রবেশ করেন। প্রবেশ করার সাথে সাথে ওই বাঙালিরা লালতং পাংখোয়া, নতুন কুমার চাকমা ও তার স্ত্রী কালাবি চাকমাকে নড়চড়া করতে নিষেধ করেন। এরপর কোনো কথা না বলে উক্ত বাঙালিরা লালতং পাংখোয়াকে অপহরণ করে নিয়ে যায়।

অপহৃতের আত্মীয়, প্রত্যক্ষদর্শী ও হোটেলের পাশের এক দোকানদারের সাথে যোগাযোগ করে নাম প্রকাশ না করার শর্তে তারা বলেন, এলাকাটি সম্পূর্ণ বাঙালি অধ্যুষিত এলাকা এবং প্রায় সবাই ব্যবসায়ী। তবে অপহরণকারীরা সাধারণ কোনো বাঙালি নয়, গোয়েন্দা বিভাগের লোকেরাই সহজে এধরনের ঘটনা ঘটাতে পারে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় এক মুরুব্বি বলেন, সামনে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন আসছে। ঐ নির্বাচনে নানা ষড়যন্ত্র সৃষ্টি করার লক্ষে সেনাবাহিনী ও গোয়েন্দা বাহিনী কোনো বিশেষ উদ্দেশ্যে এই ধরনের ঘটনা ঘটাতে পারে।

এদিকে লালতং পাংখোয়ার স্ত্রী ও তার পরিবার-পরিজন গভীর উদ্বেগের মধ্যে রয়েছেন বলে জানা গেছে। এই অপহরণ তথা নিখোঁজ হওয়ার বিষয়ে লালতং পাংখোয়ার স্ত্রী বরকল থানায় একটি জেনারেল ডাইরি করেন। বরকল থানার জিডি নং-৬২৯, তারিখ-১৭/০৯/২০২১।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here