ভারতের গারো হিলে বাংলাদেশের গারোদের পূর্বপুরুষের ভূমি থেকে উচ্ছেদের প্রতিবাদ

0
1299
ছবি ক্রেডিটঃ দ্য শিলং টাইমস

হিল ভয়েস, ১২ ফেব্রুয়ারি ২০২১, বিশেষ প্রতিবেদক: বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক বাংলাদেশের আদিবাসী গারোদের তাদের পূর্বপুরুষের ভূমি থেকে উচ্ছেদ করা হচ্ছে এই অভিযোগে এবং এর প্রতিবাদে ভারতের মেঘালয় রাজ্যের গারো হিলে ব্যাপক বিক্ষোভ প্রদর্শনের খবর পাওয়া গেছে।

গত ৯ ফেব্রুয়ারি ২০২১ সকালের দিকে গারোল্যান্ড স্টেট মুভমেন্ট কমিটি’র উদ্যোগে নারী-পুরুষের অংশগ্রহণে টুরার ডেপুটি কমিশনারের কার্যালয়ে বাংলাদেশে গারোদের উচ্ছেদের বিরুদ্ধে এক জোরালো প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। গত ১০ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ‘দ্য শিলং টাইমস’ নামে এক ইংরেজি অনলাইন গণমাধ্যমে এ সংক্রান্ত এক প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়।

সমাবেশে ‘গারোল্যান্ড স্টেট মুভমেন্ট কমিটি’র চেয়ারম্যান নিকমান চ মারাক বলেন, ‘আমরা চাই ঐ দেশে আমাদের গারো ভাইবোনদের প্রতি যা ঘটছে তার প্রতি আমাদের যে বিরোধীতা সেটা যেন বাংলাদেশ ও ভারত সরকার শোনে।’

সমাবেশে বাংলাদেশে ঘটে চলা উচ্ছেদের নিন্দা জানিয়ে শ্লোগান দেওয়া হয় এবং বিভিন্ন দাবি ও শ্লোগান সম্বলিত ব্যানার ও প্ল্যাকার্ড প্রদর্শন করা হয়। গারোল্যান্ড স্টেট মুভমেন্ট কমিটির ব্যানারে উল্লেখ করা হয়, ‘গারোরা বাংলাদেশের আদিবাসী ট্রাইব’, ‘বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক উচ্ছেদ বন্ধ করুন’।

গারোল্যান্ড স্টেট মুভমেন্ট কমিটি এই গুরুত্বপূর্ণ বিষয়টি নিয়ে শেখ হাসিনা সরকারের সাথে আলোচনা করার আহ্বান জানিয়ে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী কনরাড ক সাংমার নিকট একটি জোরালো প্রতিবাদ পত্র লেখেন, যিনি মাত্র দুই বছর আগে বাংলাদেশ সফর করেন।

গারোল্যান্ড স্টেট মুভমেন্ট কমিটি’র পক্ষ থেকে আরও বলা হয়, ‘আমরা বাংলাদেশ বনবিভাগ কর্তৃক দেওয়া উচ্ছেদ বিজ্ঞপ্তির বিরোধীতাকারী মধুপুরের আদিবাসী গারো জনগণের সাথে সংহতি জানাই। মধুপুরের গারোরা হচ্ছে আদিবাসী ট্রাইবাল, যারা প্রজন্মের পর প্রজন্ম ধরে তাদের ভূমিতে বসবাস করে আসছে।’

প্রতিবেদনে প্রতিবেশী দেশ বাংলাদেশে মধুপুরের বনে অবস্থিত নিজেদের পূর্বপুরুষের ঘরবাড়ি থেকে কয়েক হাজার গারোর উচ্ছেদের জন্য সরকারী কর্তৃপক্ষ মদদ দিচ্ছে এমন অভিযোগ তুলে সেই উচ্ছেদ পদক্ষেপের ব্যাপারে গারো হিল অঞ্চলে ক্ষোভ সৃষ্টি হয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি টাঙ্গাইল জেলার মধুপুরে বনবিভাগ কর্তৃক আদিবাসীদের বাসভূমিকে জাতীয় উদ্যান ও তথাকথিত সংরক্ষিত বনভূমি ঘোষণা করে ভূমি উদ্ধারের নামে অধিবাসীদের উচ্ছেদ করার উদ্যোগ নেয়া হয় অভিযোগ উঠে। এর প্রতিবাদে গত ৩১ জানুয়ারি ২০২১ বিকেলে স্থানীয় জলছত্র ফুটবল মাঠে উক্ত উচ্ছেদ ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে এক মহাসমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। জয়েন শাহী আদিবাসী উন্নয়ন পরিষদ, আচিকমিচিক সোসাইটি, বাগাছাস, গাসু, জিএসএফ, আজিয়া, এসিডিএফ, কোচ আদিবাসী সংগঠন, জলছত্র হরিসভা, সিবিএনসি, ইআইপিএলআর, আবিমা আদিবাসী কো-অপারেটিভ ক্রেডিট ইউনিয়ন, পীরগাছা থাংআনি কো-অপারেটিভ ক্রেডিট ইউনিয়নসহ বেশ কয়েকটি সংগঠন এবং মধুপুর গড় এলাকার বিভিন্ন গ্রামের গারো সম্প্রদায়ের ছাত্র-ছাত্রী, নারী-পুরুষসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার হাজার হাজার মানুষ মিছিল নিয়ে সমাবেশে যোগ দেন। ‘আমার ভূমি আমার মা, কেড়ে নিতে দেব না”, “বিভিন্ন মধুপুরের মাটি, আদিবাসীদের ঘাটি” শ্লোগানে তারা সমাবেশ স্থলে যোগ দেন।