দুর্বৃত্তের গুলিতে আহত চেয়ারম্যান আতোমং মারমার চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু

0
417

হিল ভয়েস, ৩১ মে ২০২৪, রাঙ্গামাটি: দশ দিন আগে সশস্ত্র দুর্বৃত্তের গুলিতে আহত রাঙ্গামাটি জেলার বিলাইছড়ি উপজেলার ৪নং বড়থলি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আতোমং মারমা আর নেই। গতকাল (৩০ মে), রাত ১১:৩৮ টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

সর্বশেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত গত ২১ মে ২০২৪ রাত আনুমানিক ১১ টার দিকে বড়থলি ইউনিয়নের বড়থলি পাড়া গ্রামে একটি বাড়ির উঠোনে বসে থাকার সময় দুই সশস্ত্র সন্ত্রাসী এসে দুটি গাদা বন্দুক দিয়ে আতোমং মারমাকে গুলি করে। এতে বাম কাঁধে, বাম উরুতে ও বুকের ডান পাশে গুলি লেগে গুরুতর আহত হন আতোমং মারমা।

এসময় মধ্যরাতে স্থানীয় সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় গ্রামের লোকজন কাঁধে বহন করে পায়ে হেঁটে বান্দরবানের রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সকাল ৫:৪৫ টায় রুমা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পৌঁছলে, কর্তব্যরত ডাক্তার প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে আহত চেয়ারম্যানকে বান্দরবান জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন।

পরদিন (২২ মে), সকালের দিকে আরও উন্নত চিকিৎসার জন্য আহত চেয়ারম্যানকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে অস্ট্রোপসারের পর আহত চেয়ারম্যানের শরীর থেকে চারটি গুলি বের করেন চিকিৎসকরা। এরপর থেকে তিনি সেখানে লাইফ-সাপোর্টে আইসিইউতে ছিলেন বলে জানা যায়।

সর্বশেষ পাওয়া একাধিক সূত্র অনুযায়ী, বম পার্টি খ্যাত কুকি-চিন ন্যাশনাল ফ্রন্টের (কেএনএফ) সন্ত্রাসীরাই এই হত্যার ঘটনা ঘটিয়েছে।

তবে, ঘটনা পরপরই স্থানীয় আরেকটি সূত্র জানায়, বড়থলি মারমা পাড়ার ৫নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড মেম্বার শৈহ্লাচিং মারমা, ৪নং ওয়ার্ডের ওয়ার্ড মেম্বার ওয়েবার ত্রিপুরা, ২০১৫ সালের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আওয়ামীলীগ সমর্থিত প্রার্থী ও ইউপিডিএফ (গণতান্ত্রিক) এর সাথে সম্পৃক্ত বলে পরিচিত সুজন ত্রিপুরা (মাস্টার) এবং ২০২৩ সালে বড়থলি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদের প্রতিদ্বন্দ্বী ও বড়থলি ইউনিয়নের আওয়ামীলীগ সভাপতি সত্যচন্দ্র ত্রিপুরা এর ইন্ধনেই আতোমং মারমার উপর এই হামলা চালানো হয়।

উল্লেখ্য যে, ঘটনার দিন ছিল দেশের ৬ষ্ঠ উপজেলা পরিষদের ২য় ধাপের সাধারণ নির্বাচনের আওতায় বিলাইছড়ি উপজেলা পরিষদের নির্বাচন। বড়থলি ইউনিয়ন এলাকার নির্বাচন কার্যক্রম সমাপ্ত হওয়ার পর চেয়ারম্যান আতোমং মারমা বড়থলি পাড়া গ্রামে একটি বাড়ির উঠোনে বসেছিলেন।

২০২৩ সালে বড়থলি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে জনংসহতি সমিতি সমর্থিত প্রার্থী হিসেবে আতোমং মারমা চেয়ারম্যান হিসেবে নির্বাচিত হন।

এলাকার জনপ্রিয় তিনি পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির ৪নং বড়থলি ইউনিয়ন কমিটির সভাপতির দায়িত্বও পালন করছিলেন বলে জানা গেছে।